আইইএলটিএস ছাড়া Medium of Instruction (MOI) দিয়ে আবেদন




কিছু প্রশ্ন প্রায় গ্রুপে আসে আইইএলটিএস ছাড়া ব্যাচেলর বা মাস্টার্সে আদই জার্মানিতে আবেদন করা যায় কিনা? আবার আবেদন করা গেলে এটা কি খারাপ কিছু কিনা? এডমিশন পেলে ভিসা হয় কিনা ইত্যাদি। প্রশ্নে একেকজনকে একেক রকমের ধারনার উপরে ভিত্তি করে উত্তর দিতে দেখি। জার্মানিতে কিছু Hidden বাস্তবতা আছে, তা হলো জার্মানিতে অনেক বিশ্ববিদ্যালয়ে কোন TOEFL বা আইইএলটিএস ছাড়া Medium of Instruction (MOI) দিয়ে সরাসরি ভর্তির আবেদন করা যায়। এমন MOI দিয়ে এভাবে আবেদন করে অনেক বাংলাদেশী জার্মানিতে এসেছেও। MOI দিয়ে আপনার টার্গেট করা ইউনিতে আবেদন করা যায় কিনা, তা বুঝবেন যদি ইউনিভার্সিটির ওয়েবসাইটে স্পষ্ট লেখা থাকে Medium of Instruction এর কথা অথবা any proof of english profeciency এর কথা অথবা IELTS 5.5 or equivalent অথবা IELTS 6.0 or equivalent লেখা থাকে। অনেক ক্ষেত্রে MOI এর ব্যাপারে স্পষ্ট করে কিছু লেখা থাকে না। ধরলাম সেখানে লেখা IELTS 7.5 or equivalent লেখা অথবা Equivalent নিয়ে কিছুই লেখা নেই। তাহলে আবেদনকারীকে উচিৎ ইউনিভার্সিটিকে সুন্দর ইংরেজিতে একটা ইমেইল করে জানানো আপনি পূর্বে ইংরেজি মিডিয়ামে পড়েছেন, কিন্তু আপনি ইংরেজিতে দক্ষ হবার পরেও IELTS পরীক্ষা দেয়া হয়নি। এখন আপনি ঐ প্রোগ্রামের জন্য (ধরলাম কোর্সের নাম X) আবেদন করতে পারবেন কিনা। তখন ঐ ইউনি আপনাকে ফিরতি মেইলে হ্যাঁ বা না জানিয়ে দিবে। MOI দিয়ে আবেদন করলে এডমিশন পাবার সম্ভবনা কেমন তা নির্ভর করে ঐ ইউনিতে ঐ সময়ে কেমন আবেদন জমা পড়েছে তার উপরে। তুলনা হিসেবে ধরলাম আপনার একাডেমিক গ্রেড খুবই ভালো, কিন্তু আপনি MOI দিয়ে আবেদন করেছেন। আবার আরেকজনের একাডেমিক গ্রেড খুবই খারাপ কিন্তু IELTS এ ৭.০। তাহলে MOI দিয়ে আবেদন করলেও গ্রেড ভালো হবার কারনে আপনার এডমিশন পাবার সম্ভবনা বেশি। আমাদের ভিতরে একটা ভুল ধারনা কাজ করে IELTS এ ভালো গ্রেড পেলেই এডমিশন বা ভিসা। এই ক্ষেত্রে একাডেমিক গ্রেড খারাপ হলেও ব্যাপার না, এটা ভুল। দিন শেষে জার্মান ইউনিতে IELTS সার্টিফিকেট আপনি ইংরেজি জানেন এমন একটা ভাষা কোর্সের সার্টিফিকেট ছাড়া কিছুই নয়। আপনার একাডেমিক গ্রেড বা অন্য অর্জন (যেমন থিসিস) এডমিশনের ক্ষেত্রে সমান গুরুত্বপূর্ণ। এবার আসি ভিসার ইন্টারভিউ বা ভিসা সাকসেসের ক্ষেত্রে। ২০১৮ তে জার্মান এম্ব্যাসি ভিসার ইন্টারভিউ বা এপয়েন্টমেন্ট দেবার জন্য IELTS সার্টিফিকেট থাকা বাধ্যতামূলক করা হয়েছিলো। কিন্তু গত বছর থেকে তা উঠিয়ে দেয়া হয়েছে। এখন আপনাকে ভিসা ইন্টারভিউয়ের এপয়েন্টমেন্ট নেবার জন্য IELTS না লাগলেও, ভিসা ইন্টারভিউয়ের আগে IELTS সার্টিফিকেট থাকলেই হলো। তার মানে IELTS এর স্কোর যাই হোক না কেনো ইন্টারভিউয়ের সময়ে IELTS সার্টিফিকেট থাকা বাধ্যতামূলক। আবার অনেকেই IELTS থাকা স্বত্বেও রিফিউজ হয়েছে। তাই যদি কেউ ধারনা করে, MOI দিয়ে এডমিশন পেলেও ভিসা হবে না অথবা এম্ব্যাসি ফেইস করতে হলে IELTS ৬.৫ ছাড়া ভালো কোন সম্ভবনা নেই, তা বড় ভুল হবে। এটা সত্য যদি কেউ MOI দিয়ে এডমিশন পেয়ে IELTS এর স্কোর কম নিয়ে এম্ব্যাসি ফেইস করতে যায়, তাহলে ইন্টারভিউ লম্বা হবে এবং যিনি ইন্টারভিউ নিবেন তিনি প্রমান করার চেষ্টা করতে থাকবে যে, আপনি ইংরেজি জানেন না। তাই ভিসা ইন্টারভিউয়ের আগে IELTS মিনিমাম ৬.০ থাকলে সুবিধা। আর না থাকলে ভালোভাবে প্রিপারেশন নিয়ে (ধরেই নিবেন লম্বা প্যাঁচানো ইন্টারভিউ হবে) ভিসা ইন্টারভিউ ফেইস করা উচিৎ।

যদি আপনার পক্ষে কোনভাবেই IELTS পরীক্ষা দেয়া সম্ভব না হয় (আর্থিক বা পারিবারিক কারন থাকতেই পারে), কিন্তু নিজের উপরে কনফিডেন্ট থাকে আপনার ইংরেজির নলেজ জার্মানিতে ইংরেজি মিডিয়ামে পড়ার জন্য পর্যাপ্ত আর আপনার টার্গেট করা ঐ ইউনিতে যদি MOI দিয়ে আবেদন করা যায়, তাহলে ঘরে বসে আবেদনের ডেডলাইন পার না করে এখনই আবেদন করে দিন। আমার দেখা অনেকেই জার্মানিতে IELTS ৫.৫ দিয়ে এসেছে। আবার ভালো IELTS নিয়েও আসতে পারেনি। তাই নার্ভাস না হয়ে কোন কান কথা না শুনে কনফিডেন্টের সাথে আবেদন করেন। আমার মতে, ঘরে বসে MOI দিয়ে আবেদন করতে কোন দোষ নেই। রিফিউজ হলেও আপনি শিখছেন, আবার এডমিশন হলেও আপনি পরের ধাপে যাচ্ছেন এবং শিখতেছেন। বাকিটা ভাগ্যের উপরে ছেড়ে দিন। আমার এই লেখা আপনার পরিচিত কারো উপকারে লাগলে তাকে ট্যাগ করে দিতে ভুলবেন না। আর আপনার ভালো লাগলে অবশ্যই আমাদের গ্রুপে ২০ জন মেম্বার যোগ করে দিবেন। নিজেদের টাইমলাইনে ঝামেলা ছাড়া শেয়ার করতে চাইলে এই লিঙ্ক থেকে করতে পারেন http://tiny.cc/l31vnz


লেখক Nur Mohammad

এই লেখা পড়ার পরে কোন প্রশ্ন থাকলে বা মতামত দিতে চাইলে অথবা কাউকে ট্যাগ করতে চাইলে আমাদের ফেইসবুক গ্রুপ থেকে করতে পারেন

Subscribe to Our Newsletter

© BESSiG. বিনা অনুমতিতে এই ওয়েবসাইটের কোনো কন্টেন্ট অন্য যেকোন ওয়েবসাইট বা ব্যবসায়িক কার্যক্রমে ব্যবহার সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ।