ডয়েচল্যান্ডের ডায়েরিঃ মন ভালো করার শহর হামবুর্গ

লিখেছেনঃ এন এইচ আশিস খান

কিছু কিছু জায়গায় গেলে কোনো কারণ ছাড়াই মন ভালো হয়ে যায়। হামবুর্গ আমার কাছে এরকম এক শহর।আমি জার্মানির যে শহরে বাস করি সেই বুখোম থেকে জার্মানির এই বন্দর নগরীর দূরত্ব সাড়ে তিনশো কিলোমিটারেরও বেশি। ঘুরাঘুরি আর কাজের খাতিরে এ শহরে এখনো পর্যন্ত আমার তিনবার যাওয়া হয়েছে।



কোনো অদ্ভুত কারণে হামবুর্গ আমার অতি ভালো লাগার এক শহর।অথচ জার্মানির উত্তরভাগে অবস্থিত হওয়ায় হামবুর্গের ভেজা আর স্যাঁতস্যাঁতে আবহাওয়া প্রায়ই অনেক জার্মানদের কাছে এ শহরকে বিরক্তিকর করে তুলে। শেষবার হামবুর্গে যাওয়ার সময় সাথে ছিলো লেভারকুসেনের ছেলে টবিয়াস। গাড়ি থেকে নামার আগেই টবিয়াসের মুখে "শাইজে ভেটার" শুনে আর বুঝতে বাকি রইলো না যে এবারো হামবুর্গের সহজাত গুড়িগুড়ি বৃষ্টি আমাদের স্বাগত জানাবে।

বার্লিনের পর জার্মানির দ্বিতীয় বৃহত্তম শহর হামবুর্গ সব দিক দিয়েই জার্মানির অন্যতম শ্রেষ্ঠ শহর। প্রতি বছর যখন পৃথিবীর সবচেয়ে বসবাসযোগ্য শহরগুলোর তালিকা করা হয় হামবুর্গ বরাবরই সেরা দশে থাকে। হামবুর্গের পরিচ্ছন্নতা, নিরবিচ্ছিন্ন ট্রান্সপোর্ট ব্যাবস্থা আর প্রাকৃতিক পরিবেশ দেখে সহযেই এই লিস্টে হামবুর্গের অবস্থানের যথার্থতা অনুমান করা যায়। প্রায় আঠারো লক্ষ মানুষের শহর হওয়া স্বত্বেও সবকিছুই যেন এখানে অনেক বেশি পরিপাটি।



জার্মানির বৃহত্তম আর ইউরোপের তৃতীয় বৃহত্তম এই পোর্টসিটি সত্যি যেন সুন্দরের পসরা নিয়ে সেজে আছে। জার্মানি তথা ইউরোপের অন্যান্য শহরের তুলনায় এখানে বেশ কিছু ইউনিক আকৃতি আর ডিজাইনের বিল্ডিং দেখা যায়। এর মধ্যে অন্যতম হলো শহরের সবচেয়ে উঁচু ভবন এলবফিলহারমোনি কনসার্ট হল। ২০১৭ সালে প্রায় ৮৭ কোটি ইউরো ব্যায়ে নির্মিত এলবা নদীর তীরে অবস্থিত পৃথিবীর সবচেয়ে অত্যাধুনিক এই কনসার্ট হলটির মনোমুগ্ধকর আকৃতির কারণেই হয়তো আজকাল তা অনেকটাই হামবুর্গ শহরের প্রতীক হয়ে উঠেছে। দশতলা অফিস বিল্ডিং চিলে হাউজের শিল্পীত ডিজাইনও যে কাউকে মুগ্ধ করতে যথেষ্ট। হামবুর্গ রাঠহাউজ বিল্ডিংটি আমার দেখা জার্মানির সবচেয়ে সুন্দর টাউন হল ভবন। বিশালতা আর শিল্পকলা এখানে মিলে মিশে যেন একাকার হয়ে গেছে। জার্মানির অন্যতম পুরোনো শহর হওয়ায় এখানে পুরোনো ভবনের ছড়াছড়ি।এর মধ্যে বোরোক ডিজাইনের অন্যতম নিদর্শন হয়ে দাঁড়িয়ে আছে সেন্ট মাইকেল চার্চ। হামবুর্গ বন্দর তথা হাফেন সিটি খুব সহযেই আধুনিক এক বন্দর নগরীর উদাহরণ হয়ে থাকতে পারে।


এ শহরের নামের ইংরেজি উচ্চারণ হ্যামবার্গ থেকে হ্যামবার্গারের উত্তপত্তি কিনা তা নিয়ে বিতর্ক থাকলেও হামবুর্গ যে এ পৃথিবীতে জার্মানির প্রবেশদ্বার তা নিয়ে কোনো সন্দেহ নেই।আর্থিক দিক দিয়ে জার্মানির সবচেয়ে ধনী রাজ্যগুলোর একটি হওয়ায় হামবুর্গের জীবনযাপনের স্ট্যান্ডার্ড অত্যান্ত উচুমানের এবং ব্যায়বহুল। হামবুর্গ এমন এক শহর যা একই সাথে চাকচিক্য আর আধুনিকতার সাথে লালন করে এর ইতিহাস আর ঐতিহ্য। জার্মানির সব শহরই ক্রিসমাসের সময় সাজে নতুন সাজে। তবুও গত ক্রিসমাসের কিছুদিন আগে হামবুর্গে গিয়ে বড়দিন উপলক্ষে শহরের সাজসজ্জা দেখে রীতিমতো আমার চোখ ছানাবড়া। মুগ্ধতা নিয়ে রাস্তার পাশে দাঁড়িয়ে উপভোগ করলাম হামবুর্গের গ্র‍্যান্ড ক্রিসমাস প্যারেড।

হামবুর্গকে বলা হয় সুপারলেটিভের শহর। এ শহরের সবকিছুই দ্য বিগেস্ট, দ্য মোস্ট আর দি ওল্ডেস্ট। আড়াই হাজারের বেশি সেতু নিয়ে জলের শহর ভেনিসকে ছাপিয়ে এক ব্রিজের শহরের নাম হামবুর্গ। প্রতিবছর প্রায় আট কোটি টন পণ্য আনা নেওয়া করে হামবুর্গ পোর্ট জার্মানির বৃহত্তম গভীর জলের বন্দর। এই হামবুর্গেই রয়েছে পৃথিবীর সবচেয়ে বড় ফিটনেস স্টুডিও। জার্মানির সবচেয়ে পুরোনো স্টক এক্সচেঞ্জ আর পৃথিবীর সবচেয়ে পুরোনো মার্চেন্ট ব্যাংকটিও এই হামবুর্গেই অবস্থিত। চল্লিশ হাজারেরও বেশি স্টুডেন্টস নিয়ে হামবুর্গ ইউনিভার্সিটি জার্মানির অন্যতম বৃহত্তম আর প্রসিদ্ধ বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর মধ্যে একটি।


ইউনিলিভার আর এয়ারবাসের মতো বিশ্ববিখ্যাত বেশ কিছু প্রতিষ্ঠানের হেডকোয়ার্টার নিয়ে হামবুর্গ ইউরোপের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ শহরগুলোর একটি হয়ে আছে।

পর্যটকদের কাছে অন্যতম আকর্ষণীয় এই জার্মান শহরে আসলে আপনার হতাশ হওয়ার সম্ভাবনা খুবই কম। হামবুর্গই সম্ভবত আমার দেখা একমাত্র জার্মান শহর যেখানে একই সাথে বড় শহরের ব্যাস্ততার ভিরেও অদ্ভুত এক প্রশান্তির অনুভূতি পাওয়া যায়। এই অনুভূতি আমার একান্ত ব্যাক্তিগতও হতে পারে। হয়তোবা কোনো এক গভীর রাতে হামবুর্গের অচেনা কোনো সেতুতে দাঁড়িয়ে নদীর জলে গুদামঘরের শহর স্প্রাইখারস্টাডের ছায়া দেখে মনের সব বিষাদ দূর হয়েছিলো আমার। সেই থেকে হামবুর্গ আমার মন ভালো করার শহর।

Subscribe to Our Newsletter

© BESSiG. বিনা অনুমতিতে এই ওয়েবসাইটের কোনো কন্টেন্ট অন্য যেকোন ওয়েবসাইট বা ব্যবসায়িক কার্যক্রমে ব্যবহার সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ।