KfW লোন নিয়ে কিছু কনফিউশনের উত্তর (very important)



আজকে থেকে বহুল প্রতিক্ষিত KfW এর ইন্টারন্যাশনাল স্টুডেন্টদের জন্য লোনের আবেদনের কাজ শুরু হয়েছে। যারা এখনো এই ব্যাপারে জানেন না, তারা আমার আগের লেখাটা পড়ে নিতে পারেন। লিঙ্ক https://www.facebook.com/groups/bsfg.pro/permalink/3006954066051212/ নীচে কিছু কনফিউশন দূর করার চেষ্টা করলাম ১। এই লোনের আবেদনের সাথে Schufa নেগেটিভ বা পজিটিভ অথবা আপনার আগের ক্রেডিট কার্ডের লোনের কোন সম্পর্ক নেই। তাই ভয় না পেয়ে আবেদন করতে পারবেন।

২। দুই নম্বর অপশনটা লাগবে না। আমি ফেইসবুকে গ্রুপে লেখা আমার পোস্টের কমেন্টে Shatabdi Roy Swarna থেকে জানতে পারলাম এই অপশনটা ইন্টারন্যাশনাল স্টুডেন্টদের জন্য না। আবার উনি এই ফর্ম ছাড়াই ব্যাংকে কাগজ জমা দিয়েছে। তাই এই ফর্ম পূরণ করা লাগবে না। তাই ব্রেক্টের ভিতরে যেটা আছে তা আপনারা করবেন না। কনফিউশন যাতে না থাকে তাই আমি ব্রেকেটের ভিতরের লেখা না কেটে আপনাদের দেখার জন্য রেখে দিলাম। (((((( আমাদের মতো ইন্টারন্যাশনাল স্টুডেন্টদেরকে আবেদনের জন্য একটা অতিরিক্ত সিম্পল ফর্ম আলাদা পূরণ করতে হবে, যা নিজের জার্মান ইউনিয়ের ইন্টারন্যাশনাল অফিস বা একজাম অফিস থেকে পূরণ করতে পারবেন। (ঐ ফর্মের লিঙ্ক আপনি আমার আগের লেখাতে পাবেন।) যদি ইউনি বন্ধ থাকে তাহলেও এটা তাদেরকে দিয়েই পূরণ করাতে হবে। কারন ব্যাংক এই ব্যাপারে ইউনি খোলা না বন্ধ সে কথা নাও শুনতে পারে। আপনারা এই ক্ষেত্রে অনলাইনে ইউনিয়ের সাথে যোগাযোগ করবেন। প্রতিটা ইউনিয়ের ইন্টারন্যাশনাল অফিস এই KfW এর লোন সম্বন্ধে জানে। তাই তারাই আপনাকে আপনার ঐ ফর্ম পূরণ করে দিবে। যদি তা নাও করে তারা অতিরিক্ত একটা পেপার ইউনিয়ের প্যাডে লিখে দিবে।)))))) ৩। এই KfW এর লোন এবং তার পেমেন্ট সবকিছুই আগামী ২০২১ সালের মার্চ পর্যন্ত সুদ মুক্ত। তার মানে আপনি এই সময়ে মাসে সর্বোচ্চ ৬৫০ ইউরো করে (কতো মাসের জন্য লোনের আবেদন করছেন তা আপনার উপরে) লোন পাবেন। ৪। ধরলাম, আপনি লোন পেয়েছেন, তখন প্রথম পেমেন্ট পাওয়ার মাস থেকে একটা grace period এ আপনাকে লোন রিপেমেন্ট করার কিস্তি পরিশোধ করতে হবে না। এই grace period লোন পাওয়ার কিস্তির প্রথম মাস থেকে হিসেব করে মিনিমাম ৬ মাস আর সর্বচ্চো ২৩ মাস পর্যন্ত হবে (নির্ভর করবে ব্যাংক এবং আপনার অবস্থার উপরে) লোন নেবার পর আপনি এই লোন ৬ মাস থেকে ২৩ মাস পর্যন্ত কিস্তিতে শোধ করতে পারবেন। আপনি সেই পিরিওডের পর থেকে লোন পরিশোধ করা শুরু করবেন। ৫। আপনি বিনা সুদে ২০২১ সালের মার্চ পর্যন্ত লোন পাবেন। এখন ধরলাম, আপনি লোন পরিশোধ কিস্তিতে পে করা শুরু করবেন এখন থেকে ৬ মাস বা একবছর পর থেকে। তাহলে আপনাকে ঐ নির্দিষ্ট সময় পর্যন্ত সাধারন সুদ দিতে হবে। (আমি যা বুঝলাম) কারন এই সময়টা ২০২১ সালের মার্চ এর পরে।

৬। এই লোনের আবেদনের কোন নির্দিষ্ট ডেডলাইন নাই। তাই আপনি কেউ আবেদন করেছ্‌ তা থেকে দেখে, শিখে ১০ বা ১৫ দিন পরেও আবেদন করতে পারছেন। ওয়েবসাইটে দেখলাম আপনি যেকোনো সময়ে আবেদন করতে পারবেন। তবে জার্মান সরকার এখন আপনার লোনের গ্যারান্টার হবার কারনে ২০২১ সালের মার্চ পর্যন্ত আপনাকে এই লোন পাবার জন্য তেমন কোন কাগজ দেখাতে হবে না। আবার কোন সুদ ও দিতে হবে না।

৭। যদি ২০২১ সালের মার্চ এর পরে আপনার লোনের সুদ দিতে আপত্তি না থাকে তাহলে সুদের হার বাৎসরিক ৪.৩৬% করে হবে।


৮। দিন শেষে কিন্তু এটা লোন, কোন গ্র্যান্ট না। তাই লোন নেবার সময়ে তা মাথায় রাখবেন। আর আমি এখন পর্যন্ত কোন বাংলাদেশিকে দেখিনি এর আগে এই লোন নিয়েছে। তাই আমার ইনফো ভুল হতেই পারে। আমার ইনফোয়ের মূল সূত্র তাদের ওয়েবসাইট ঘেঁটে আমি যা বুঝেছি তা। আই ভুল হলে দৃষ্টিআকর্ষণ করবেন। আমি আপনাদের সবার সুবিধার জন্য লোনের জন্য আবেদন করার ইংরেজি ভার্সনের পুরো অফিশিয়াল নিয়ম এটাচমেন্টে দিয়ে দিলাম। আমার এই লেখা আপনার পরিচিত কারো উপকারে লাগলে আপনি তাকে ট্যাগ করে দিন। আর আপনার ভালো লাগলে গ্রুপে ২০ জন মেম্বার যোগ করে দিন। আমার এই লেখা আপনি আপনার ফেইসবুক টাইম লাইনে শেয়ার করতে চাইলে এই লিঙ্ক থেকে করতে পারেন https://cutt.ly/byZ10Q8









© লেখক Nur Mohammad এর। এই লেখা পড়ার পরে কোন প্রশ্ন থাকলে বা মতামত দিতে চাইলে অথবা কাউকে ট্যাগ করতে চাইলে আমাদের ফেইসবুক গ্রুপের মাধ্যমে করতে পারেন

Subscribe to Our Newsletter

© BESSiG. বিনা অনুমতিতে এই ওয়েবসাইটের কোনো কন্টেন্ট অন্য যেকোন ওয়েবসাইট বা ব্যবসায়িক কার্যক্রমে ব্যবহার সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ।